Notice: Undefined index: status in /home/dailynew7/public_html/exclusiveadhirath.com/wp-content/plugins/easy-facebook-likebox/easy-facebook-likebox.php on line 69

Warning: Use of undefined constant REQUEST_URI - assumed 'REQUEST_URI' (this will throw an Error in a future version of PHP) in /home/dailynew7/public_html/exclusiveadhirath.com/wp-content/themes/herald/functions.php on line 73
এনআরসি-সিএএ কি আদৌ সমর্থনযোগ্য? কী জানালেন দেবর্ষি?
চলমান

এনআরসি-সিএএ কি আদৌ সমর্থনযোগ্য? কী জানালেন দেবর্ষি?

 

আপনি সিএএ এবং এনআরসি’কে সমর্থন করেন?

সিএএ এবং এনআরসি কোনও ভাবেই সমর্থনযোগ্য নয়। এটি ভারতের সাধারণ মানুষের স্বার্থ বিরোধী একটি প্রক্রিয়া।

বিশ্বের অসংখ্য দেশে এনআরসি রয়েছে, আপনি নিশ্চয়ই জানেন। পৃথিবীর ক্ষুদ্রতম দেশ ভ্যাটিকান সিটিতেও রয়েছে এনআরসি। এনআরসি যারা সমর্থন করছেন তাদের যুক্তি ঘরে কতোজন রয়েছে তা যদি বুঝতেই না পারি তাহলে রান্না করবো কীভাবে? খরচের বাজেটই বা কীভাবে তৈরি হবে?

তার জন্য দেশে একটি প্রক্রিয়া রয়েছে যার নাম সেনসাস বা জনগণনা। এই জনগণনার প্রক্রিয়া প্রতি দশ বছর পর পর হয়। ব্রিটিশ আমলেও এটি হতো, এখনও হয়। আগামী ২০২১ এও একটি জনগণনা হবে। জনগননার পরিসংখ্যান থেকেই দেশের যে আর্থ-সামাজিক অবস্থা, সেগুলি বোঝা যায়। কোন ধর্মের কতো মানুষ রয়েছেন, নারীদের অবস্থা কী সবই বোঝা যায়। বাজেট তৈরি করতে গেলে তার জন্য আলাদা করে এনআরসি তৈরির প্রয়োজন হয়না। এখন এনআরসি কি একেবারেই করার দরকার নেই? এনআরসি হওয়ার যে প্রক্রিয়া সেটি আসলে ভারতবাসীর স্বার্থবিরোধী। ইতিমধ্যেই আমাদের কিছু নাগরিক পরিচয় রয়েছে। আধার কার্ড বা ভোটার কার্ড নাগরিক পরিচয় হিসেবেই দেওয়া হয়েছে। পশ্চিমবঙ্গের প্রায় সাড়ে ৯ কোটি মানুষের আধার কার্ড রয়েছে। তাদের নাম নাগরিক তালিকায় তুললেই তো মিটে যায়। নতুন করে আরেকটি প্রক্রিয়া করার কোনও যৌক্তিকতা নেই।